আজ ১৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭, রবিবার ৩১ মে ২০২০ , ৫:৩০ পূর্বাহ্ণ
ব্রেকিং নিউজ
সর্বশেষ খবর
নারায়ণগঞ্জবাসীকে ঈদুল ফিতরের আগাম শুভেচ্ছা জানালেন সজল বিন ইবু রূপগঞ্জ উপজেলায় সকল মার্কেট বন্ধের নির্দেশ সোনারগাঁয়ে সকল বিপনি বিতান বন্ধ করে দিলেন প্রশাসন না’গঞ্জের সাবেক সেই এসপি হারুন এবার ডিএমপির উপ-কমিশানর করোনা: শরীফুল হকের পক্ষে সবাইকে সচেতন থাকার আহ্বান জানালেন শাওন

ফতুল্লায় গৃহকর্মী তরুনীকে পাশবিক নির্যাতন, সেই গৃহকত্রী গ্রেফতার


০৬ নভেম্বর ২০১৯ বুধবার, ১০:২৯  পিএম

সময় নারায়ণগঞ্জ


ফতুল্লায় গৃহকর্মী তরুনীকে পাশবিক নির্যাতন, সেই গৃহকত্রী গ্রেফতার

স্টাফ রিপোর্টার : নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লায় এক গৃহকর্মীকে পাশবিক নির্যাতনের ঘটনায় অভিযুক্ত গৃহকত্রী সেলিনাকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। বুধবার (৬ নভেম্বর) বেলা ১২টার দিকে ফতুল্লা বাজার এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করে দুপুরেই আদালতে প্রেরণ করা হয়।    

এর আগে মঙ্গলবার (৫ নভেম্বর) রাতে ফতুল্লা মডেল থানায় মামলা দায়ের করেন নির্যাতিত গৃহকর্মীর পিতা জামাল উদ্দিন। মামলা নং- ১৬। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ফতুল্লা মডেল থানার উপ-পরিদর্শক (এস.আই) ফজলুল হক।

গ্রেফতারকৃত সেলিনা (৩৫) ফতুল্লার দেলপাড়া পেয়ারা বাগান এলাকার মোঃ বাবু মিয়ার স্ত্রী। তিনি পেশায় আইনজীবি বলে বিশ্বস্ত সূত্রে জানা গেছে। তার স্বামী মোঃ বাবু মিয়া সৌদী প্রবাসী। দেলপাড়া পেয়ারা বাগান এলাকায় ৫ তলা বিশিষ্ট নিজস্ব ভবনের ২য় তলায় বসাবস করছেন সেলিনা। তিনি ২ মেয়ে এবং ১ পুত্র সন্তানের জননী।

মামলা সূত্রে জানা গেছে, চাঁদপুরের ছেঙ্গারচর থানাধীন কলাকান্দা ইউনিয়নের শানিরপাড় গ্রামের বাসিন্দা জামাল উদ্দিনের ছোট মেয়ে ডালিয়া (১৬)। পূর্ব পরিচয়ের সুবাধে গত প্রায় দেড় বছর আগে সেলিনার বাসায় তরুনী ডালিয়া গৃহকর্মী হিসেবে কাজ নেয়। এরপর থেকে তরুনী মেয়েটির জীবনে কালো ছাঁয়া নেমে আসে।  চুন থেকে পান খশলেই খুন্তি পুড়িয়ে ছ্যাঁকা দিয়ে নির্যাতন করে আসছিলো ডালিয়াকে। তরুনীর শরীরের নানা অঙ্গে অসংখ্য গুরুতর পোড়া জখম করে নির্দয় গৃহকর্তী সেলিনা। এমনকি বাসা থেকে যেন বেড়িয়ে যেতে না পারে সে জন্য তাকে তালাবদ্ধ করেও রাখা হত। কান্নাকাটি করলে তাকে মেরে ফেলার হুমকি দিত প্রতিনিয়তই।

সর্বশেষ গত সোমবার (৪ নভেম্বর) সকাল অনুমান ৯টার দিকে ফ্রিজে দুধ না রাখার মত তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে গৃহকত্রী সেলিনা ডালিয়ার চুল ধরে মারধর করতে থাকে। কান্নাকাটি করায় সেলিনা আরো ক্ষিপ্ত হয়ে ধারালো বটি নিয়ে ডালিয়াকে হত্যার উদ্দেশ্যে কোপ দেয়। কিন্তু ভাগ্যক্রমে সরে যাওয়ায় প্রাণে রক্ষা পায় মেয়েটি। এরপরও বটির ভোতা অংশ দ্বারা এলোপাথারী পিটিয়ে পিঠে এবং হাত-দুই পায়ে মারাত্মক রক্তাক্ত জখম করা হয় তাকে।

একপর্যায়ে প্রতিবেশীদের সহায়তায় বাবাকে ফোন করে ভয়াবহ এই নির্যাতনের খবর জানালে গ্রামের বাড়ী চাঁদপুর  থেকে ফতুল্লায় ছুটে আসে বৃদ্ধ জামাল উদ্দিন। এর উপযুক্ত বিচার চেয়ে ফতুল্লা মডেল থানায় মামলা দায়ের করেন তিনি।  

সূত্র জানায়, আসামী সেলিনার বিরুদ্ধে প্রতারণার একাধিক মামলা রয়েছে। যদিও তিনি নিজেই একজন আইনজীবি !

সময় নারায়নগঞ্জ.কম এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আপনার মন্তব্য লিখুন:

শহরের বাইরে -এর সর্বশেষ