আজ ২১ অগ্রাহায়ণ ১৪২৭, শনিবার ০৫ ডিসেম্বর ২০২০ , ৬:০৭ পূর্বাহ্ণ
ব্রেকিং নিউজ
সর্বশেষ খবর
নারায়ণগঞ্জবাসীকে ঈদুল ফিতরের আগাম শুভেচ্ছা জানালেন সজল বিন ইবু রূপগঞ্জ উপজেলায় সকল মার্কেট বন্ধের নির্দেশ সোনারগাঁয়ে সকল বিপনি বিতান বন্ধ করে দিলেন প্রশাসন না’গঞ্জের সাবেক সেই এসপি হারুন এবার ডিএমপির উপ-কমিশানর করোনা: শরীফুল হকের পক্ষে সবাইকে সচেতন থাকার আহ্বান জানালেন শাওন

নিটিং শিল্প বাঁচাতে মালিকদের ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহবান


৩০ ডিসেম্বর ২০১৯ সোমবার, ০৭:১৩  পিএম

সময় নারায়ণগঞ্জ


নিটিং শিল্প বাঁচাতে মালিকদের ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহবান

গার্মেন্ট ও নিটিং শিল্পের সাথে অঙ্গ ভাবে জড়িত থাকলেও সঠিক মূল্য না পাওয়ায় নিটিং শিল্প ধ্বংসের দিকে ধাবিত হচ্ছে। নিটিং শিল্পে কাজের নির্ধারিত মূল্য না থাকায় ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে মালিকপক্ষ। প্রতি মাসে লোকসান গুনতে হচ্ছে নিটিং মালিকদের। নিটিং শিল্পের সমিতি থাকা সত্বেও বাংলাদেশ নিটিং শিল্পকে নিয়ন্ত্রনে আনা সম্ভব হচ্ছে না। তাই নিটিং নিটিং শিল্পকে বাঁচাতে হলে শিল্পের মালিকদের ঐক্যবদ্ধ হওয়ার জন্য সমিতির সভাপতি সেলিম সারোয়ার আহবান করেন।

 

সোমবার (৩০ ডিসেম্বর) দুপুরে নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লার বিসিক শিল্পনগরীতে সমিতির নিজস্ব ভবনে বাংলাদেশ নিটিং অনার্স এসোসিয়শনের বার্ষিক সাধারণ সভায় সমিতির সভাপতির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।

 

তিনি আরও বলেন, নিটিং ব্যবসায়ীদের মধ্যে ঐক্যবদ্ধতা নেই। যার ফলে কেউ কেউ গোপনে কম মজুরীতে কাজের অর্ডার হাতিয়ে নিচ্ছেন। এতে অনেকেই উৎপাদন খরচ থেকে দু’এক টাকা লাভ রেখে কাজের অর্ডার পাচ্ছেনা। আর ফায়দা লুটে নিচ্ছে গার্মেন্টস মালিকরা। আরেকটি সমস্যা হলো সময় মতো মজুরীর বাকি টাকা উঠাতে পারছেনা নিটিং ব্যবসায়ীরা। এসব সমস্যার কারনে মাসে প্রায় ৮’শ কোটি টাকা নিটিং ব্যবসায়ীদের লোকসান গুনতে হচ্ছে। আমাদের এই নিটিং ব্যবসায়ীদের মন্দা কাটিয়ে উঠতে নিটিং মূল্য বাস্তবায়নে ৭৮ সদস্য উপ-কমিটি গঠন করা হয়েছে। চেষ্টা করছি দ্রæত এ সমস্যা সমাধান করে ব্যবসায়ীদের মধ্যে স্বস্তি ফিরিয়ে দিতে। আর যারা ক্ষতিগ্রস্ত হয়ে কারখানা বন্ধ করে ব্যবসা গুটিয়ে নিয়েছে তাদের কাছে অনুরোধ করবো তারা যেন ফিরে আসেন।

 

অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেন, নিটিং মালিকদের মধ্যে ঐক্যবদ্ধ না থাকায় কোন কোন ব্যবসায়ী কম মজুরীতে কাজের অর্ডার হাতিয়ে নিচ্ছেন। যে মজুরীতে তারা অর্ডার নিচ্ছেন সে মজুরী তাদের লাভ তো দূরের কথা প্রায় ৩-৪ টাকা লোকসান গুনতে হয়। অথচ নিজে টিকে থাকতে কিছু ব্যবসায়ী কম মজুরীতে গার্মেন্টেসের মালের অর্ডার নিয়ে অন্যান্য ব্যবসায়ীদের পথে বসাচ্ছে।

 

বক্তারা আরো বলেন, অনেক গার্মেন্ট ব্যবসায়ী অর্ডার দিয়ে অর্ধেক বা তারও বেশি মজুরী বাকি রেখে মাল তৈরী করে নিয়ে যায়। এ মজুরী দেই দিচ্ছি বলে সময় ক্ষেপন করেন। নির্ধারীত সময়ে মজুরী না পেয়ে অনেকেই কারখানা বন্ধ করে অন্য ব্যবসায় চলে গেছেন। এভাবে গত ৬ মাসে নারায়ণগঞ্জসহ দেশে প্রায় অর্ধশত নিটিং কারখানা বন্ধ হয়ে গেছে।

 

অনুষ্ঠানের বাংলাদেশ নিটিং অনার্স এসোসিয়শনের সভাপতি সেলিম সারোয়ারের সভাপতিত্বে সমিতির পরিচালক গোলাম মাওলা ও সমিতির সচিব সিরাজুল ইসলামের পরিচালনায় এবং সমিতির পরিচালক শ্রী নির্মূল চন্দ্র রায় সার্বিক সহযোগিতায় অনুষ্ঠানে অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন বিশিষ্ট সাংবাদিক সেলিম ওমরা খান, নারায়ণগঞ্জ জেলা কৃষকলীগের সাধারণ সম্পাদক ইব্রাহিম চেঙ্গিস, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী বাবু শ্যামল কুমার চন্দ্র সাহা প্রমুখ।

 

এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন সমিতির সিনিয়র সহসভাপতি আবুল বাশার, সহসভাপতি রকিবুল হাসান রাকিব, নিজাম মুন্সি, সহসভাপতি (অর্থ) মাহবুব উল আনোয়ার, পরিচালক আবু বক্কর সিদ্দিক (আবুল) জাহিদুল আলম, খায়রুল ইসলাম, জাকির হোসেন, আলী রেজা, মজিবুর রহমান, আকবর হোসেন, সাহারীয়া (জুয়েল), এনামুল হাফিজ, বশির আহম্মেদ, কোরাইশ মল্লিক, নুরুল ইসলাম, আবু জাফর হাওলাদার, আবু সাঈদসহ সমিতির অন্যান্য সদস্যবৃন্দ। 

সময় নারায়নগঞ্জ.কম এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আপনার মন্তব্য লিখুন:

অর্থনীতি -এর সর্বশেষ